Wednesday, October 28, 2020
উত্তরাঞ্চলটপ নিউজ

১৪ দলের প্রার্থী লিটন, সবুজ সংকেত পেলেন বুলবুল

179views

১৪ দলের প্রার্থী লিটন, সবুজ সংকেত পেলেন বুলবুল

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজশাহী সিটি করপোরেশন নির্বাচনে ১৪ দলের একক প্রার্থী হিসেবে মহানগর আওয়ামী লীগ সভাপতি ও সাবেক মেয়র এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটনের নাম ঘোষণা করা হয়েছে। জোটের স্থানীয় বৈঠকে একক প্রার্থী হিসেবে তাকে ঘোষণা দেয়া হয়। নির্বাচনী প্রচারে শক্তভাবে মাােঠ থাকার প্রস্তুতি শুরু করেছে স্থানীয় ১৪ দল। গতকাল দুপুরে রাজশাহী মহানগর আওয়ামীলীগের নির্বাহী কমিটির সভায় খায়রুজ্জামান লিটনকে দলের একক প্রার্থী হিসেবে ঘোষণা দেয়া হয়েছে। এদিকে, বিএনপির মেয়র প্রার্থী হিসেবে দলীয় হাইকমান্ড এরই মধ্যে সবুজ সংকেত দিয়েছে মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুলকে। এ অবস্থায় অনেকটাই নিশ্চিত যে আবারো মুখোমুখি হচ্ছেন এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন ও মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল।
বেশ কিছুদিন ধরেই রাজশাহী শহরজুড়ে প্রচার চলছিলো খায়রুজ্জামান লিটনের পক্ষে। তিনি নৌকা প্রতিক নিয়ে নির্বাচন করছেন এটাও নগরবাসীর কাছে অনেকটাই জানা। তবে, এসবের আনুষ্ঠানিকতা শুরু হয়েছে। আওয়ামীলীগের অন্য কোন নেতার এই পদে নির্বাচনের ইচ্ছা আছে কিনা তার নিস্পত্তি করা হয়েছে। গতকাল দুপুরে নির্বাহী কমিটির সভায় সিদ্ধান্ত হয় লিটনই দলীয় প্রার্থী। সর্বসম্মতিক্রমে গৃহিত এই সিদ্ধান্ত গতকাল বিকেলে ঢাকায় পাঠানো হয়েছে। পরে বিশেষ দেয়া করা হয় এবং সবাইকে মিষ্টিমুখ করানো হয়। এর আগে সোমবার ১৪ দলের একক প্রার্থী হিসেবে মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি ও সাবেক মেয়র এ এইচ এম খায়রুজ্জামান লিটনের নাম ঘোষণা করা হয়েছে। সোমবার রাজশাহী চেম্বার ভবনে ১৪ দলের বৈঠকে এ সিদ্ধান্ত নেওয়া নেওয়া হয়। এদিকে, প্রতিটি ওয়ার্ডে একক প্রার্থি দেয়ার চেষ্টা করছে আওয়ামীলীগ। বিভিন্ন ওয়ার্ডে কাউন্সিলর প্রার্থীর ক্ষেত্রে যাতে সমঝোতা করা যায় সেই চেষ্টা করছে স্থানীয় নেতারা। যেসব ওয়ার্ডে সমঝোতা সম্ভব হবেনা সেখানে একাধিক প্রার্থীর তথ্য কেন্দ্রে পাঠাবে এবং সেই অনুযায়ি সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। মেয়র প্রার্থীর ফলাফলের উপর যাতে কাউন্সিলর প্রার্থীদের কোন দুরত্ব প্রভাব না ফেলে সেই বিষয়টি মাথায় রাখছে আওয়ামীলীগ নেতারা।
মহানগর আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকার বলেন, ‘লিটনের বাইরে আমারা বিকল্প কিছু ভাবছি না। সে কারণেই দলের একক প্রার্থী হিসেবে বৈঠক থেকে তাঁকে প্রার্থী হিসেবে মনোনয়ন দিতে দলের কাছে প্রস্তাবনা পাঠানো হচ্ছে।’ তিনি বলেন, কাউন্সিলর প্রার্থীর ক্ষেত্রে এরই মধ্যে আমরা ১২টি সাধারণ ওয়ার্ডে এবং ৫টি সংরক্ষিত ওয়ার্ডে একক প্রার্থী বাছাই করেছি। এসব ওয়ার্ডে একক প্রার্থীকেই আমাদের পক্ষ থেকে সমর্থন দেওয়া হবে। তবে মেয়র পদে যেন কোনো ধরনের প্রভাব না পড়ে এ কারণে অন্যান্য ওয়ার্ডের প্রার্থীদের ক্ষেত্রে তাদের নিজেদের ওপরই ছেড়ে দেওয়া হবে। এসব ওয়ার্ডে একাধিক প্রার্থী থাকায় কাউকেই আওয়ামী লীগের সমর্থন দেওয়া হবে না।
এদিকে, বিএনপির সম্ভাব্য প্রার্থী হিসেবে বর্তমান মেয়র মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুলের নাম এরই মধ্যে শোনা গেলেও এবারে এই নামটি চুড়ান্ত করেছে বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটি। বিএনপির একটি সূত্র জানিয়েছে, গত সোমবার ঢাকায় বিএনপি মহাসচিব মীর্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের সাথে আলোচনার পর এই সিদ্ধান্ত চুড়ান্ত হয়েছে। বিএনপি চেয়ারপারসনের উপদেষ্টা মিজানুর রহমান মিনু, রাজশাহী মহানগর বিএনপির সভাপতি মোসাদ্দেক হোসেন বুলবুল ও সাধারণ সম্পাদক শফিকুল হক মিলনকে ডেকে পাঠানো হয় ঢাকায়। সোমবার রাতে তারা মীর্জা ফখরুলের সাথে সাক্ষাত করেন। সেখানেই বুলবুলকে সবুজ সংকেত দেয়া হয়েছে। সেই সাথে প্রস্তুতি গ্রহণের জন্য বলা হয়েছে। বিএনপির একটি সূত্র বলছে কেন্দ্রের সবুজ সংকেত পাওয়ার পর রাজশাহী ফিরে নতুন মাত্রায় কাজ শুরু করেছেন বুলবুল। স্থানীয় নেতাদের সাথে দফায় দফায় বৈঠক শুরু করেছেন তিনি। গতকালই বিভিন্ন পর্যায়ে আলোচনা করেছেন।

Leave a Response