Monday, October 26, 2020
টপ নিউজরাজনীতি

এবার অপপ্রচার করতে দেয়া হবে না : লিটন

187views

এবার অপপ্রচার করতে দেয়া হবে না : লিটন

নিজস্ব প্রতিবেদক: রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি সাবেক মেয়র ও সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনের আওয়ামী লীগের মনোনীত মেয়র প্রার্থী এএইচএম খায়রুজ্জামান লিটন বলেছেন, আমাদের নেত্রী প্রধানমন্ত্রী দেশকে উন্নয়নের দিকে এগিয়ে নিয়ে যাচ্ছেন। তখন আমরা রাজশাহীবাসী পিছিয়ে যাচ্ছি। আমাদের দল ক্ষমতায়, অথচ আমরা সেই উন্নয়নের অংশ হতে পারছি না। আমি উন্নয়নের কাজটি করতে চেয়েছিলাম। কিন্ত ২০১৩ সালে বিভিন্ন অপপ্রচার চালিয়ে আমাদের তা করতে দেয়া হয়নি। অপপ্রচারকারী জামায়াত-বিএনপির নেতাকর্মীরা বাড়ি বাড়ি গিয়ে ভোট নষ্ট করে। এবার তা করতে দেবো না। আমরা কাউকে আগ বাড়িয়ে আক্রমন করতে যাব না। কিন্তু আমাদের বাড়িতে এসে মিথ্যা বলে ভোট নষ্ট করবে, এটা করতে দেয়া হবে না। শনিবার বিকেলে রাজশাহী মেডিকেল কলেজ মিলনায়তনে মহানগর আওয়ামী লীগ আয়োজিত বিশেষ বর্ধিত সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব বলেন।

খায়রুজ্জামান লিটন বলেন, অপপ্রচার রুখতে হবে, নৌকার ভালো কথা বলতে হবে, সরকারের উন্নয়নের কথা সবাইকে জানাতে হবে। সরকারের উন্নয়নের বার্তা ঘরে ঘরে পৌছাতে হবে। লিটন আরো বলেন, জনগণের ভোট নিয়ে নির্বাচিত হয়ে রাজশাহীর সার্বিক উন্নয়নের প্রতিশ্রুতি দিয়ে গত ৫ বছরে একটিও উন্নয়ন করতে পারেনি। তাদের কথা বলতে হবে। মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ডাবলু সরকারের সঞ্চালনায় বর্ধিত সভায় বক্তব্য দেন মহানগর আওয়ামী লীগের উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য অধ্যক্ষ রুহুল আমিন প্রমাণিক প্রমুখ।

মুক্তিযোদ্ধা জনতা সমাবেশ: রাজশাহী মহানগর আওয়ামী লীগের সভাপতি, সাবেক মেয়র ও সিটি কর্পোরেশন নির্বাচনের আওয়ামী লীগের মনোনীত মেয়র প্রার্থী বলেছেন, উন্নয়ন ও জনগণের কল্যান শুধুমাত্র আওয়ামী লীগই করে। অন্য কোনো দলের সময় উন্নয়ন হয়নি, হয় না, আগামীতেও হবে বলেও মনে হয় না। শনিবার সকালে নগরীর এক কমিউনিটি সেন্টারে ন্যাশনাল ফ্রিডম ফাইর্টাস ফাউন্ডেশন রাজশাহী মহানগর আহব্বায়ক কমিটির উদ্যোগে আয়োজিত মুক্তিযোদ্ধা জনতা সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন। ফাউন্ডেশনের মহানগরের আহ্বায়ক মুক্তিযোদ্ধা আলতাফ হোসেনের সভাপতিত্বে সমাবেশে বক্তব্য দেন ফাউন্ডেশনের চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা ড. এসএম জাহাঙ্গীর আলম, প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি রুহুল আমিন মজুমদার, মুক্তিযোদ্ধা সংসদ কেন্দ্রীয় কমিটির সাবেক সদস্য জহিরউদ্দিন জালাল প্রমুখ।

Leave a Response